অনলাইনে আয় করার ৫ টি উপায়

দেখুন,আমি জানি যে, এখন আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন, যারা স্টুডেন্ট পড়াশুনার পাশা-পাশি অনলাইনে কিছু জব করতে চায়,যাতে করে পকেট  মানি টা এখান থেকে বেরিয়ে আসে বা কিছু টা ইনকাম হয়।যেহেতু, ইন্টারনেটের ৯৫.%ফেক্স বা ক্যাম so সেহেতু বুঝতে পারছেননা যে, কি কাজ করবেন বা কোন কাজ টা করলে সত্যি  ইনকাম হবে। তো এসব কথা ভেবে 👉👉আমি ৫ টি পার্ট টাইম জব বেছেছি বা ঠিক  করেছি।👈👈যেগুলো    আমি এখন আলোচনা করবো।তো এই ৫ টি হল: জেনউন জব, জেনউন জব আমি এই জন্য বলতেছি যে,বাকিদের থেকে এখানে Successরেট টা অনেক বেশি  এবং এখান থেকে ইনকাম  হওয়ার সম্ভাবনা টা ১০০%। তো এখান থেকে  ইনকাম   হবেই, এই জন্য আমি জেনউন জব বলছি,

তো এই পোস্টে আমি ৫টি জবের কথা বলবো এবং যেহেতু আমি এই ক্যাটাগরিটা পার্ট টাইম জব হিসাবে রাখছি তো সেহেতু আমি সেই সব জব কে চয়েস করেছি। যেই গুলো পার্ট টাইম হিসাবে করা যাবে সেই গুলোর জন্য আপনাদেরকে সারাদিন invest করতে হবেনা। আপনি পড়া শোনার পাশা-পাশি এই গুলো চালায় যেতে পারবেন। চলুন তাহলে আলোচনা শুরু করা যাক। আমি কোন কোন জব গুলোর কথা বলছি- 

প্রথমে আমরা যে জবটির কথা বলবো সেটা হলো: Making Thanmil for YouTube videos- ইউটিউব ভিডিওর জন্য থান মিল বানানো এই টার ডিমান্ড এখন অনেক বেশি তো এটা সর্ব প্রথম আপনাদেরকে বানানো শিখতে হবে। আপনি মোবাইল থেকেও বানাতে পারেন। অথবা কম্পিউটার থেকেও বানাতে পারেন।

তো এখন কথা হচ্ছে এই সার্ভিস টি আপনারা কোথায় sell করবেন?

আপনারা সরাসরি ফ্রিল্যান্সিং যে সব ওয়েবসাইট আছে- যেমন:ফাইবার, আপওয়ার্ক বা  freelancer.com এই গুলোতে sell দিতে পারবেন। এবং এখানে বাংলাদেশের অনেকেই অলরেডি কাজ শুরু করে দিয়েছে।

২।নাম্বার যে জবটির কথা আমরা এখন বলবো সেটা হলো: ভিডিও এডিটিং জব বা ভিডিও এডিটারের জব তো আপনি যদি পার্ট টাইম হিসাবে কাজটা করতে চান বা ফ্রিল্যান্সার হিসাবে করতে চান  তো তাহলে আপনি করতেই পারেন। আপনাকে ভিডিও এডিটিং করার জন্য আপনার ঘরে পিসি লাগবে বা ড্যাক্সটপ লাগবে বা একটি ল্যাপটপ থাকলেও চলবে,তাতে কোনো অসুবিধা নেই,বর্তমানে বাংলাদেশের অনেকই এ কাজটি করতেছে এবং সেখান থেকে ভালো পরিমাণ একটা  ইনকাম করছে।

৩। নাম্বারে আমারা এখন যে জবটির কথা বলবো সেটা    হলো:  online novel raiting- অনলাইনে কোন নাটক লেখা বা কোন গল্প লেখা কবিতা লেখা,আর্টিকেল,টপিকের উপর আর্টিকেল লিখে সেটা শেয়ার করার মাধ্যমে ভালো পরিমাণ একটা ইনকাম করতে পারবেন।এখন কথা হচ্ছে এই গুলো আপনারা কোথায় শেয়ার করবেন? 

আপনারা চাইলে ওয়েব শরিফুল নামে একটা ওয়েবসাইট আছে সেখানে শেয়ার করে একটা ভালো পরিমাণ ইনকাম করতে পারবেন।আর একটা কথা হচ্ছে এখানে আপনারা যে নাটক কবিতা আর্টিকেল, ইত্যাদি লিখবেন সে গুলো অবশ্যই‌ ৬০০, ওয়ার্ড হতে হবে। এ বেশি হলেও কোন সম্যসা নেই।

৪।নাম্বারে যে জবটির কথা আমরা এখন বলবো সেটা হলো:Kindle ebook pable sin-  কিন্ডেল ইবুক পাব্লেসিন ব্যাপার টা কী? 

আপনি ইবুক বানাবেন সেই ইবুকটাকে কিন্ডেলে বা অ্যামাজনের যে ওয়েবসাইট আছে বা প্লাটফর্মে আপলোড করবেন।খুব সিম্পল ব্যাপার।

তো এটার উপরে আমি এখনো লিখেনি তো এটার উপরে যদি আপনারা ডিটেলে জানতে চান কমেন্টে জানাবেন।আমি পরবর্তীতে এটা নিয়ে বিস্তারিত লিখবো ইংসা আল্লাহ।

৫।নাম্বারে যে জবটির কথা আমরা এখন বলবো সেটা   হলো:Product reviews on YouTube and Facebook- ইউটিউব এবং ফেসবুকে প্রডাক্ট রিভিউ করা।এই মুহূর্তে কোনো মানুষ ইন্টারনেটে বা অনলাইনে কেনার আগে রিভিউ দেখে 

যেমন-আপনারা একটু  ইউটিউবে  সার্চ দিয়ে দেখবেন,প্রডাক্ট নিয়ে যে, সব ভিডিও করেছে তারা কিন্তু দুই ভাবে ইনকাম করতেছে ১-ওই ভিডিওর ডিস কিফ শোনে অ্যামাজন কম্পানির লিং দিয়ে একটা ইনকাম করছে।

২।ইউটিউবে অ্যাডস এর মাধ্যমে ইনকাম করতেছে।

আর এই ভিডিও গুলো করা অনেক সহজ।আপনারা শুধু প্রডাক্ট গুলোর ভিডিও তৈরি করে এই দুই ধরনের ইনকাম করতে পারবেন।তো আজ এই পর্যন্তই ছিল আগামী পোস্টে আবার কথা হবে।

Comments

You must be logged in to post a comment.

লেখক সম্পর্কেঃ

আমি দাখিল মাদ্রাসায় পড়ি